1. fancy615439@gmail.com : Jannatul Ferdous Abodhi : Jannatul Ferdous Abodhi
  2. ahmedsuman307@gmail.com : Ahmed Suman : Ahmed Suman
  3. rakibowasim@gmail.com : Rakib-Ul Islam : Rakib-Ul Islam
সংসদের পাঁচ আসন শূন্য, গেজেট পেলেই উপনির্বাচনের সিদ্ধান্ত। || দৈনিক সপ্তস্বরা - দৈনিক সপ্তস্বরা
শনিবার, ০১ এপ্রিল ২০২৩, ১০:৫৪ পূর্বাহ্ন

সংসদের পাঁচ আসন শূন্য, গেজেট পেলেই উপনির্বাচনের সিদ্ধান্ত। || দৈনিক সপ্তস্বরা

সরদার রাকিবুল ইসলাম বনসাই
  • প্রকাশের সময় : রবিবার, ১১ ডিসেম্বর, ২০২২

স্পিকার ড. শিরীন শারমিন চৌধুরী বলেন, একাদশ জাতীয় সংসদ থেকে পদত্যাগ করেছেন বিএনপির ৭ সংসদ সদস্য (এমপি)। তারা স্ব-স্ব স্বাক্ষরযুক্ত সাতজনের আবেদন জমা দিয়েছেন। পাঁচ জন সশরীরে ছিলেন, তাদের আবেদন গ্রহণ করা হয়েছে। তিনি বলেন, সংবিধানের ৬৭(২) অনুযায়ী ওই আসনগুলো শূন্য হয়ে গেছে। বাকী দুইজনের আবেদন যাচাই-বাছাই করে সিদ্ধান্ত নেয়া হবে।

“সংবিধানের ৬৭(২) অনুযায়ী ওই আসনগুলো শূন্য হয়ে গেছে। বাকী দুইজনের আবেদন যাচাই-বাছাই করে সিদ্ধান্ত নেয়া হবে।” —স্পিকার ড. শিরীন শারমিন চৌধুরী।

রোববার (১১ ডিসেম্বর) বেলা ১১টা ২০ মিনিটে সংসদ ভবনে স্পিকারের দপ্তরে যান বিএনপির সংসদ সদস্যরা। তারা পদত্যাগপত্র জমা দিয়ে বেরিয়ে যাওয়ার পর গণমাধ্যমকর্মীদের স্পিকার এ কথা বলেন। স্পিকার জানান, এরমধ্যে আব্দুস সাত্তার অসুস্থ থাকায় সংসদ সচিবালয় তার স্বাক্ষর মিলিয়ে দেখবে ও কথা বলবে। সব ঠিক থাকলে তার আবেদনও গৃহীত হবে। তবে ই-মেইলের মাধ্যমে দেয়ায় হারুনুর রশীদের আবেদন গ্রহণ হবে না, তাকে পরে এসে জমা দিতে হবে। এদিকে বিএনপি’র সংসদ সদস্যদের পদত্যাগজনিত কারণে শূন্য হওয়া আসনগুলোতে উপ-নির্বাচন অনুষ্ঠিত হবে। আসনগুলো শূন্য ঘোষণা করে সংসদ সচিবালয়ের গেজেট পাওয়ার পরেই ইসি থেকে এসব আসনের উপ-নির্বাচনের সিদ্ধান্ত নেওয়া হবে। নির্বাচন কমিশন থেকে এ তথ্য জানা গেছে। নির্বাচন কমিশনের অতিরিক্ত সচিব অশোক কুমার দেবনাথ রোববার গণমাধ্যমকে বলেন, পদত্যাগ জনিত কারণে হোক আর যে কোনও কারণেই হোক জাতীয় সংসদের কোনও আসন শূন্য হলে সেখানে উপনির্বাচন হবে।

“সংসদের মেয়াদ শেষ হওয়ার ১৮০ দিনের আগে কোনও সংসদীয় আসন শূন্য হলে উপনির্বাচন করতে হবে। চলতি একাদশ সংসদের মেয়াদ এখনও এক বছরের বেশি রয়েছে। কাজেই এখন কোনও আসন শূন্য হলে নির্বাচন কমিশনকে আইন অনুযায়ী উপ নির্বাচন করতেই হবে।” —নির্বাচন কমিশনের অতিরিক্ত সচিব অশোক কুমার দেবনাথ।

তিনি বলেন, সংসদের মেয়াদ শেষ হওয়ার ১৮০ দিনের আগে কোনও সংসদীয় আসন শূন্য হলে উপনির্বাচন করতে হবে। চলতি একাদশ সংসদের মেয়াদ এখনও এক বছরের বেশি রয়েছে। কাজেই এখন কোনও আসন শূন্য হলে নির্বাচন কমিশনকে আইন অনুযায়ী উপ নির্বাচন করতেই হবে। একইভাবে কমিশনার মো. আলমগীর সাংবাদিকদের বলেন, আমরা গণমাধ্যমে বিএনপি’র এমপিদের পদক্ষেপের কথা জেনেছি। এ বিষয়ে কোনও গেজেট নোটিফিকেশন আমরা পাইনি। গেজেট পেলে আমরা এ বিষয়ে সিদ্ধান্ত নেবো। যেদিন পদত্যাগের গেজেট নোটিফিকেশন হবে তার ৯০ দিনের মধ্যে সেই সব আসনে উপ-নির্বাচন অনুষ্ঠিত হবে।

ফেইসবুক আইডি থেকে মন্তব্য করুন :

শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

সমজাতীয়
© All rights reserved © 2022 swaptasora
কারিগরি সহযোগিতায় : মোস্তাকিম জনি